কোটা সংস্কার আন্দোলন সংসদে আজ কথা বলবেন প্রধানমন্ত্রী

ডেস্ক রিপোর্টঃ চলমান কোটা সংস্কার নিজে আজ বুধবার (১১ এপ্রিল) জাতীয় সংসদে কথা বলবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সরকারি চাকরিতে নিয়োগে কোনো কোটা থাকবে না বলে জানিয়েছেন তিনি। এর পরিবর্তে মেধার ভিত্তিতে শতভাগ নিয়োগ হবে।

বুধবার সকাল সাড়ে ৯টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন বলে জানিয়েছেন ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক এসএম জাকির হোসাইন।

তিনি বলেন, আজ সকালে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ ও আমি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে তিনি আমাদের এ কথা বলেন। পরে বুধবার দুপুরে সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে লেখা পৃথক পোস্টেও ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক একই কথা জানান।

এতে উভয় নেতা বলেন, “বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা যা বলেন তা করেন।

বিগত দিনে কোটা পদ্ধতি সংস্কার নিয়ে চলমান আন্দোলনের প্রেক্ষিতে ছাত্র সমাজের পক্ষ থেকে আজ সকালে আমরা (সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক বাংলাদেশ ছাত্রলীগ) মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর সাথে সাক্ষাত করি। তিনি বলেন ‘সরকারি চাকুরীতে কোন কোটা পদ্ধতি থাকবেনা’। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এই সিদ্ধান্তকে ছাত্রসমাজ সাধুবাদ জানায়। অশেষ কৃতজ্ঞতা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি।

জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু”

উল্লেখ্য, গত রোববার কোটা সংস্কারের দাবিতে শান্তিপূর্ণ পদযাত্রা কর্মসূচি পালনকালে শাহবাগে পুলিশের বাধার মুখে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েছিলেন শিক্ষার্থীরা। এর পর ওই রাত থেকে সোমবার বিকাল পর্যন্ত পুলিশ ও ছাত্রলীগের সঙ্গে শিক্ষার্থীরা দফা দফায় সংঘর্ষে জড়ান।

এর মধ্যেই সরকারের পক্ষ থেকে কোটা সংস্কারের বিষয়ে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে বৈঠক করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তখন আগামী ৭ মের মধ্যে কোটা সংস্কারে দাবি পূরণ করা হবে বলে শিক্ষার্থীদের আশ্বাস দেয়া হয়। তখন শিক্ষার্থীরা এ সময় পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত ঘোষণা করেন।

তবে আন্দোলনকারীদের বিষয়ে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরীর বিরূপ মন্তব্য ও জুন মাসে বাজেটের পর কোটা সংস্কার করা হবে বলে অথর্মন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের বক্তব্যকে ঘিরে ফের মঙ্গলবার থেকে আন্দোলনে নামেন শিক্ষার্থীরা।

এখন শিক্ষার্থীরা বলছেন, তারা আর ৭ মে পর্যন্ত অপেক্ষা করবেন না। কোটা সংস্কারের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে ঘোষণা আসতে হবে এবং গৃহীত সিদ্ধান্তের বিষয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করতে হবে।

এ দাবিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়কেন্দ্রিক কোটা সংস্কার আন্দোলনে একাত্মতা জানিয়ে মঙ্গলবারের পর আজও রাজধানীর বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর শিক্ষার্থীরা আন্দোলন করছেন।